আক্কেলপুরে শীতকালীন সবজির আগাম চাষে কৃষকের মুখে হাসি

শীতকালীন সবজির আগাম চাষে কৃষকের মুখে হাসি

নিয়াজ মোরশেদ.জয়পুরহাট: আক্কেলপুর উপজেলায় শীতকালীন সবজির আগাম চাষ শুরু করেছেন চাষিরা। আর উৎপাদিত সবজি বাজারে তুলে ভালো দাম পেয়ে বেজায় খুশি তারা। বন্যার ক্ষতি পুষিয়ে নিতে উপজেলার ৫ টি ইউনিয়নের কৃষকরা আগাম শীতকালীন সবজি চাষে ব্যস্ত রয়েছেন বলে জানিয়েছে আক্কেলপুর কৃষি বিভাগ।

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তারা কৃষকের মাঠে গিয়ে বিভিন্ন পরামর্শ দিচ্ছেন। এতে আগাম সবজি চাষ করে লাভবান হচ্ছেন চাষিরা। আবহাওয়া অনুকূল থাকায় উপজেলায় শীতের সবজির বাম্পার ফলনের আশা করছেন তারা।

সরেজমিন উপজেলার বিভিন্ন মাঠ ঘুরে দেখা গেছে,  উপজেলার ঠেঙ্গা মাড়া, নওদুয়ারী,বেগুন বাড়ি, উত্তর রাম শালা, মাতাপুর  দক্ষিণ কানুপুর, হালির মোড়,  ভীকনী, কেশব পুর আওয়ালগারী,বিহারপুর,রোয়াইর,রামশালা,সোনামুখী,শ্রীরামপুর,ভদ্রকালী,দেবী শাউল,পূর্ণ গোপীনাথপুর, আলাদীপুর বালুদুয়ার,কাশিড়া, জাফরপুর, তিলকপুর এবং জামালগঞ্জ, সহ উপজেলার বিভিন্ন গ্রামের চাষিরা ব্যস্ত শীতকালীন সবজি চাষে। অন্যান্য ফসলের তুলনায় সবজি চাষ লাভবান হওয়ায় কৃষকরা এদিকেই ঝুঁকে পড়ছেন। শীতের আগেই বাজারে বিক্রি করে বেশি টাকা আয়ের আশায় চাষিরা এখন জমিতে শীতকালীন শাকসবজির চারা বপন ও পরিচর্যার কাজ করছেন। অনেকে আবার সবজির দাম বেশি থাকায় ছোট অবস্থায়ই তা তুলে বাজারে বিক্রি করছেন। আক্কেলপুরে যেসব শাকসবজি চাষ হচ্ছে সেগুলোর মধ্যে আলু, মূলা, বেগুন, ফুলকপি, বাঁধাকপি, টমেটো, ঢেঁড়স, লালশাক, পালংশাক, পুঁইশাক, লাউ অন্যতম।

বর্তমানে খুচরা বাজারে নতুন সবজির চাহিদা বেশ ভালো আর দামও বেশি। এদিকে, স্থানীয় চাহিদা মিটিয়ে আক্কেলপুরের কৃষকদের উৎপাদিত এসব সবজি দেশের বিভিন্ন প্রান্তে চলে যাচ্ছে।

বৃহস্পতিবার সকালে সরেজমিনে উপজেলার আওয়ালগাড়ী গ্রামে গিয়ে দেখা যায়, বেলাল শেখ তার স্ত্রী এবং পরিবারের ৬ জনকে নিয়ে বেগুনের চারা রোপণ করতে ব্যস্ত।

তিনি জানান, বন্যার পানিতে খেতটি ডুবে ছিল, পানি নামার সঙ্গে সঙ্গে মাঠে চাষ দিয়ে চারা রোপণের উপযোগী করেছেন। তারপর বেগুনের বীজ কিনে তা রোপণ করার ২০-৩০ দিন পর তুলে চারা রোপণ করছেন। তিনি এক বিঘা ভিটে জমিতে বেগুনের  চারা রোপণ করবেন।