কাপাসিয়ায় বিধবাকে ধর্ষণের পর শ্বাসরোধ করে হত্যা, আটক ২

ধর্ষণ

কাপাসিয়া (গাজীপুর) প্রতিনিধি: গাজীপুরের কাপাসিয়ায় সেলিনা বেগম ওরফে ফালানী (৫২) নামে এক বিধবাকে ধর্ষণের পর হত্যা করা হয়েছে। মঙ্গলবার রাতে উপজেলার কড়িহাতা ইউনিয়নের শ্রীপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

পুলিশ ঘটনার সাথে জড়িত সন্দেহে দুইজনকে আটক করেছে।

কাপাসিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ আবু বকর সিদ্দিক জানান, ওই গ্রামের মৃত মুস্কুত আলীর মেয়ে ফালানী নিজ পিত্রালয়ে একটি ঘরে একাই থাকতেন। তিনি বিধবা ও নিঃসন্তান। বেশ কয়েকমাস ধরে একই এলাকার লোকমান হোসেনের ছেলে রাজিব (২২) এবং মৃত ইসমাইলের ছেলে ফালু ওরফে বোরহান প্রায় সময়ই ফালানীকে উত্ত্যক্ত করত। এ নিয়ে সম্প্রতি স্থানীয় ইউপি সদস্য ও চেয়ারম্যানের মাধ্যমে তাদের সতর্ক করে দেয়া হয়। মঙ্গলবার রাতেও প্রতিদিনের মতোই নিজ ঘরে ঘুমিয়ে ছিল ফালানি।

কিন্তু বুধবার সকালে ঘুম থেকে উঠতে দেরি হওয়ায় সকাল নয়টার দিকে এলাকাবাসী তাকে খুঁজতে গিয়ে ঘরের দরজা খুলে বিবস্ত্র, হাত ও মুখ বাধা অবস্থায় তার লাশ দেখতে পেয়ে পুলিশে খবর দেয়। খবর পেয়ে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্যে গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

তিনি আরও জানান, লাশ উদ্ধার করে সুরতহালে ধর্ষণের পর শ্বাসরোধ করে হত্যার প্রাথমিক আলামত পাওয়া গেছে। পুলিশ এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে রাজিব ও ফালুকে আটক করেছে।

নিহতের ভাই বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেন।