কাপাসিয়ায় মোটরসাইকেল চুরির সন্দেহে যুবলীগ নেতাকে গণপিটুনি

কাপাসিয়া (গাজীপুর) প্রতিনিধি :  মোটরসাইকেল চুরির সন্দেহে গণপিটুনির শিকার হয়েছেন মোঃ শরীফ দর্জি(৩২) নামে এক যুবলীগ নেতা। ৩০ জুলাই রবিবার সন্ধ্যার দিকে গাজীপুরের কাপাসিয়া উপজেলার চাঁদপুর ইউনিয়নের নলী পলাশ এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

আহত শরীফ দর্জি উপজেলার পাবুর দর্জি বাড়ির জাকির হোসেন বকুলের ছেলে।

এলাকাবাসী জানায়, উপজেলা যুবলীগ নেতা শরীফ দর্জী নম্বরপ্লেটহীন মোটরসাইকেল যোগে নলী পলাশ এলাকা দিয়ে যাওয়ার পথে সন্দেহ হলে কতিপয় যুবক তাকে ধরার চেষ্টা করে। একপর্যায়ে সে মোটরসাইকেলটি ফেলে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টাকালে বিক্ষুব্ধ জনতা তাকে বেধড়ক মারপিট করে।

খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে তাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পাঠায়। পরে সেখান থেকে আহতকে গাজীপুরের শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়।

শরীফের পারিবারিক সূত্র জানায়, শরীফ একজন ফুটবল খেলোয়াড়। তার পিতা বকুল দর্জি স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতা ও ক্রীড়া সংগঠক। তার বিরুদ্ধে মোটরসাইকেল চুরির অভিযোগ পরিকল্পিত ষড়যন্ত্র বলে মনে করেন শরীফের পরিবার-পরিজন।

কাপাসিয়া থানার এসআই হেলাল উদ্দিন বিজ্ঞাপন চ্যানেলকে জানান, শরীফ দর্জির কাছ থেকে চোরাই মোটরসাইকেল উদ্ধার করে থানায় আনা হয়েছে। তবে শরীফ দর্জি মোটরসাইকেল চোর নাকি দলীয় কোন্দলে ফেঁসে গেছেন তা পরিস্কার না।

তিনি আরও জানান,  উদ্ধারকৃত মোটরসাইকেল হারানো বিষয়ে এক সাপ্তাহ আগে লিটন নামে একজন ব্যক্তি কাপাসিয়া থানায় জিডি করেছিল। তাকে বলেছি কাগজপত্র নিয়ে থানায় আসার জন্য। কাগজপত্র দেখলে  মোটরসাইকেলটির মালিকের পরিচয় জানা যাবে।

এ ঘটনায় থানায় মামলা হয়নি বলেও জানান এসআই হেলাল উদ্দিন।