নেপালে বিধ্বস্ত ইউএস-বাংলা বিমানে শ্রীপুরের ৫ জন

ইউএস-বাংলা বিমান

শ্রীপুর (গাজীপুর) প্রতিনিধিঃ নেপালের কাঠমান্ডুতে সোমবার দুপুরে বিধ্বস্ত হওয়া ইউএস-বাংলা বিমানে ছিলেন গাজীপুর জেলার শ্রীপুরের নগর হাওলা গ্রামের ফারুক ও মেহেদী হাসান দম্পতির পাঁচ সদস্য।

তাদের ভাগ্যে কি ঘটেছে এখনো জানতে পারেনি তাঁদের পরিবার। অনেক উদ্বেগ-উৎকন্ঠা নিয়ে অপেক্ষার প্রহর গুনছেন তাঁরা।

পারিবারিক সূত্র জানায়, ওই বিমানে থাকা পাঁচ সদস্য হলেন- উপজেলার নগরহাওলা গ্রামের মৃত শরাফত আলীর ছেলে ফারুক আহমেদ (৩২), তাঁর স্ত্রী এ্যালমুন নাহার এ্যান্নি (২৫), তাদের এক মাত্র সন্তান প্রেয়সী (৩), একই গ্রামের তোফাজ্জল হোসেনের ছেলে মেহেদী হাসান অমি (৩৩) ও তাঁর স্ত্রী সাঈদা কামরুন্নাহার স্বর্ণা আক্তার (২৫)।

ফারুক পেশায় একজন ফটোগ্রাফার। মেহেদী হাসান পেশায় ব্যবসায়ী। ফারুক ও মেহেদী হাসান সম্পর্কে মামাতো ফুফাতো ভাই।

তাঁরা উভয়ের পরিবার ভ্রমণের উদ্দেশ্যে নেপাল যাচ্ছিলেন বলে নিশ্চিত করেন তাঁর বন্ধু ফরহাদ হক।

বিমান বিধ্বস্তের খবরে নগরহাওলা এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে। স্বজনরা বুক ফাটা কান্নায় বাতাস ভারী হয়ে যাচ্ছে। এলাকাবাসীর বিশ্বাস তারা সবাই জীবিত ফিরে আসবে।

এ ব্যাপারে শ্রীপুর থানার ওসি আসাদুজ্জামান বিজ্ঞাপন চ্যানেলকে জানান, দূর্ঘটনা কবলিত পরিবারের খোঁজখবর নেয়াসহ সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগের চেষ্টা চলছে।