ময়মনসিংহে রাতের আঁধারে পাকা কবর ভাংচুর করেছে দুবৃত্তরা

তমাল কান্তি সরকার  : রাতের আঁধারে ময়মনসিংহের ভালুকার উথুরা ইউনিয়নের বনগাঁও শাহ মিসকিন (রহঃ) আলাইহের মাজারে পাকা কবর ভেঙ্গে ফেলেছে দুবৃত্তরা।

সরজমিনে গিয়ে দেখা যায়, ওই মাজারের সাবেক খাদেম উথুরা ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান মরহুম কাসেম আলীর পাকা কবরের তিনটি মিনার ও উপরের অংশ ১৩ মে শনিবার গভীর রাতে দুবৃত্তরা ভেঙ্গে গুড়িয়ে দেয়।

মরহুম আবুল কাসেমের পুত্র আশরাফুল আলম সাংবাদিকদের জানান, বনগাঁও গ্রামে হযরত শাহ মিসকিন (রহঃ) আলাইহের মাজারের একাংশে অবস্থিত তার পিতার কবরের একটি পিলার মিম্বর সহ গত ৭ মে রাতে কেবা কারা ভেঙ্গে ফেলে যায়। গত ৮ মে সকালে এলাকার লোকজন ঘটনাটি প্রত্যক্ষ করে।

এ ব্যাপারে আশরাফুল বাদী হয়ে ওই দিনই ভালুকা মডেল থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন। অভিযোগ দায়েরের ৪ দিন পর গত ১৩ মে শনিবার গভীর রাতে দুবৃত্তরা আবার কবরের সবগুলি পিলার ও উপরি ভাগ ভেঙ্গে পাকা কবরটির ব্যাপক ক্ষতি সাধন করেছে।

মরহুম কাসেম আলীর বড় ছেলে হাসমত আলী জানান তার পিতা জীবদ্দশায় ৪০ বছরের মত শাহ মিসসিন (রহঃ) আলাইহের মাজারে খাদেম হিসেবে খেদমতে নিয়োজিত ছিলেন। তিনি উথুরা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান থাকা অবস্থায় মাজার এলাকায় ঘর দরজা স্থাপন করেন।

সম্প্রতি একটি কুচক্রী মহল মাজার এলাকা থেকে তার পিতার কবরটি নিশ্চিহ্ন করার লক্ষ্যে রাতের আঁধারে ভাংচুর চালাচ্ছে। কবর ভাঙ্গার ঘটনাটি এলাকার সাধারণ মানুষের মধ্যে ব্যাপক ক্ষোভের সৃষ্টি করেছে।