আজ মঙ্গলবার | ১৬ অক্টোবর, ২০১৮ || ১ কার্তিক ১৪২৫ বঙ্গাব্দ || সময় ১১:০৪ পূর্বাহ্ন
photo

শিয়ালের মাংস বিক্রির দায়ে কাপাসিয়ায় হোটেল সিলগালা

     রবিবার, ০৮ জুলাই, ২০১৮

Photo
শেয়াল জবাই করার পর তোলা ছবি

কাপাসিয়া (গাজীপুর) প্রতিনিধি: ২০১২ সালের বন্যপ্রাণী (সংরক্ষণ নিরাপত্তা) আইন লংঘন করে শেয়ালের মাংস বিক্রির অভিযোগে হোটেল সাগর নামে এক খাবার হোটেল সিলগালা করেছে ভ্রাম্যমান আদালত।

ভ্রাম্যমান আদালতের বিচারক কাপাসিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. মাকছুদুল ইসলাম জানান, শনিবার( জুলাই) বিকেলে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে উপজেলার বীর উজলী আমতলী বাজারের হোটেল সাগরে অভিযান চালানো হয়।

এসময় হোটেলে গ্রাহকদের শিয়ালের মাংস খাওয়ানোর দায়ে হোটেলটি সিলগালা করা হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, আমরা হোটেল সাগরে পৌঁছার আগেই তার মালিক জাহাঙ্গীর পালিয়ে যায়। সে জন্য তাকে গ্রেফতার কিংবা দন্ড দেয়া যায়নি।

পলাতক জাহাঙ্গীরের পরিবার থেকে জানানো হয়, শিয়ালের মাংস খেলে নাকি শরীরের ব্যথা ভাল হয়। এমন ধারণা থেকেই জাহাঙ্গীর শিয়ালটিকে গলাকেটে হত্যা করে হোটেলে টাকার বিনিময়ে খাওয়ার ব্যবস্থা করে।

শিয়ালটি কোথায় পেয়েছে- ধরেছে নাকি কিনে এনেছে তার সঠিক উত্তর দিতে পারেনি জাহাঙ্গীরের পরিবারের লোকজন।

সাত্তার নামে এক যুবক বলেন, ফাঁদ পেতে শিয়ালটি ধরা হয়।

ব্যাপারে জানতে চাইলে উপজেলা স্বাস্থ্য পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা আব্দুস সালাম সরকার বিজ্ঞাপন চ্যানেলকে বলেন, শেয়ালের মাংস খেলে শরীরের ব্যথা কমে কথাটি সম্পূর্ণ ভুয়া। এর কোনো বৈজ্ঞানিক ব্যাখ্যা নেই। এছাড়া ইসলাম ধর্মে দেশের আইনে শেয়াল জবাই করা এর মাংস বিক্রি করা বা খাওয়া অন্যায় কাজ।

এমন কুকর্মের হোতা জাহাঙ্গীরকে গ্রেফতারের দাবী এলাকাবাসীর।




photo
বিশেষ বিজ্ঞাপন